যমুনা রিসোর্ট

885

বাংলাদেশে বিদ্যমান আন্তর্জাতিক মানের অবকাশ যাপন কেন্দ্র গুলোর একটি যমুনা রিসোর্ট। বঙ্গবন্ধু যমুনা সেতুর নিকটবর্তী যমুনা নদীর পূর্বপাশে টাংগাইল ও সিরাজগঞ্জ জেলার মাঝামাঝি এই রিসোর্ট অবস্থিত। মন ভালো করার মতো আর বাইরের দেশের মতো করে সময় কাটাতে চাইলে এই রিসোর্টটি হতে পারে একটি অন্যতম পছন্দ। এই রিসোর্টের সব দিক বিবেচনা করে একে থ্রী স্টার রিসোর্ট হিসাবে মূল্যায়ন করা হয়।

রিসোর্টের ভিতরে আছে জীমনেশিয়াম, বেকারী, স্যুভেনীর শপ আর আছে ইনডোর ও আউটডোর গেমসের ব্যবস্থা। আউটডোর গেমসের মধ্যে ফুটবল, ক্রিকেট আর ইনডোর গেমসের ব্যাডমিন্টন, হকি ও দাবা খেলার ব্যবস্থা। বন্য হরিণ আর অনেক প্রজাতির পাখিরও অভয়ারণ্য এই রিসোর্টটি। এছাড়া কেঁউ নৌভ্রমনে যেতে চাইলে তারা লাইফবোট ও স্পীডবোটে ঘুরতে পারবেন। এখানে যমুনা ও ব্রহ্মপুত্র নামের দুইটি হলরুম রয়েছে যার ধারন ক্ষমতা ২০০। সুতরাং কেউ যদি কর্পোরেট প্রোগ্রাম বা কোনো পার্টি আয়োজন করতে চান, সেক্ষেত্রে এই রিসোর্টটি একটি অপশান হতে পারে।থাকার জন্য এখানে আছে ডিলাক্স এক্সিকিউটিভ সুইট, রয়্যাল সুইট, টু বেডরুম কটেজ, থ্রি বেডরুম কটেজ এবং ডরমেটরী।

যেভাবে যাবেনঃ

ঢাকার গাবতলী ও মহাখালি থেকে টাংগাইলের বাসে করে যেতে পারেন। অথবা কমলাপুর রেলস্টেশান থেকে ট্রেনেও যেতে পারেন। ট্রেনে গেলে যমুনা সেতু পৌছানোর আগের স্টেশানেই আপনাকে নেমে যেতে হবে। সেখান থেকে রিক্সায় যমুনা রিসোর্ট পৌছাতে পারেন। অথবা ভুইঞাপুর উপজেলা থেকে সিএনজি বা ভ্যান দিয়ে যমুনা সেতু বাজার থেকে ২০-৪০ টাকা ভাড়া দিয়ে যেতে পারেন। তাছাড়া যমুনা রিসোর্টে আপনি চাইলে নিজস্ব গাড়িতে যমুনা রিসোর্টে যেতে পারেন

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here