বালাপুর জমিদারবাড়ি

0
292

নরসিংদীর সদর উপজেলার পাইকারচর ইউনিয়নের মেঘনা নদীর তীরে বালাপুর গ্রামে জমিদার নবীন চন্দ্র সাহা প্রতিষ্ঠিত ঐতিহ্যবাহী বালাপুর জমিদারবাড়ি। জমিদার নবীন চন্দ্র সাহা সেই সময় প্রায় ৩২০ বিঘা জায়গার ওপর অত্র অঞ্চলের সবচেয়ে বড় এবং বিলাসবহুল জমিদার বাড়িটি নির্মান করেছিলেন। বালাপুর জমিদারবাড়ির ভবন গুলোর চমৎকার কারুকাজ অত্যন্ত সুনিপুণ নির্মাণশৈলীতে তৈরি যা শত শত বছর পরও ঐতিহ্যপ্রেমী এবং ভ্রমণপিপাসু পর্যটককে মুগ্ধ করে। স্থাপত্যকলার দৃষ্টিনন্দন এক নিদর্শন ইতিহাস আর ঐতিহ্যের সৌন্দর্যমণ্ডিত বালাপুরের জমিদার নবীন চন্দ্র সাহার বাড়ী। বালাপুর জমিদারবাড়ির এই প্রাচীন ঐতিহ্য এক গুরুত্বপূর্ণ প্রত্নতত্ত্ব নিদর্শন।

বালাপুর জমিদার বাড়ির প্রতিষ্ঠাতা জমিদার বাবু নবীনচন্দ্র সাহা। তবে কবে নাগাদ এই জমিদার বাড়িটি প্রতিষ্ঠিত হয় তা জানা যায়নি। প্রায় ৩২০ বিঘা জমির উপর এই জমিদার বাড়িটি নির্মাণ করা হয়। এখানে একটি একতলা ভবন, একটি দোতালা ভবন ও একটি তিনতলা ভবন তৈরি করা হয়েছিল যা এখনো দাঁড়িয়ে আছে। এই জমিদার বাড়ির জমিদাররা ছিলেন সংস্কৃতিমান। সন্ধ্যা নামলেই জমিদার বাড়িতে প্রতিদিন ডাক ঢোলের বাজনা বাজা শুরু হত। বিভিন্ন ধরনের নাটক, পালা গানসহ আরো অনেক ধরনের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হতো।

৩২০ বিঘা জমির উপর একটি একতলা, একটি দুইতলা ও একটি তিনতলা ভবন রয়েছে। তিনতলা ভবনটি একশত এক (১০১) কক্ষ বিশিষ্ট ভবন। ৯২ শতক জমি জুড়ে একটি পুকুর রয়েছে। পুকুরটিতে পুরুষ এবং মহিলাদের জন্য আলাদা আলাদা ঘাট রয়েছে। এছাড়াও জমিদার বাড়িটিতে একটি মন্দির ও দুর্গাপূজার মণ্ডপ রয়েছে।

যেভাবে যাবেনঃ-

ঢাকার গুলিস্তান থেকে মেঘালয়/বিআরটিসি বাসে মাধবদী অথবা মহাখালী থেকে পিপিএল/চলনবিল/বাদশা/কাজল/উত্তরা/এরাবিয়ান পরিবহনে পাঁচদোনা নেমে সেখান থেকে বাস/সিএনজিতে মাধবদী অথবা গুলিস্তান থেকে মেঘালয়/বিআরটিসি করে মাধবদী। মাধবদী থেকে সিএনজিতে বালাপুর নবীন চন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয়। সেখান থেকে এক মিনিট হাটলেই বালাপুর জমিদার বাড়ী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here