মনিপুরী পল্লী| ট্র্যাভেল নিউজ বাংলাদেশ

660

বাংলাদেশে অনেক অঞ্চলেই বিভিন্ন জাতি গোষ্ঠীর মানুষ বসবাস করে । তাদের মধ্যে সিলেট অঞ্চলে মনিপুরি জাতি গোষ্ঠীর মানুষদের দাখা যায়। সেখানে তার তাদের ঐতিহ্যের ধারক হিসাবে দীর্ঘ দিন ধরে মনিপুরি কাপরের ব্যবসা করে আসছে।  এর এই জন্যই ওই ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের অঞ্চলটিকে মনিপুরী পল্লী বলা হয়। এই মনিপুরী পল্লী সিলেট বিভাগের মৌলভীবাজার জেলার শ্রীমঙ্গল উপজেলায় অবস্থিত। এদেশে বসবাসকারি মনিপুরী সম্প্রদায়ের বেশীরভাগ মানুষের আবাস মৌলভীবাজার জেলার আদমপুর এবং মাধবপুরে। নিজস্ব সংস্কৃতি এবং ঐতিহ্যের কারনে মনিপুরী সম্প্রদায়ের রয়েছে আলাদা খ্যাতি। মনিপুরিদের তৈরি করা বিভিন্ন জিনিষের দেশে বিদেশে রয়েছে ব্যাপক চাহিদা আর এ কারনেই রাসমেলা অথবা মনিপুরী পল্লীতে না যেতে পারলেও এখানকার দোকানেই আপনি এসব মনিপুরি পণ্য পেয়ে যাবেন। মনিপুরি সম্প্রদায়ের নাচের রয়েছে আলাদা খ্যাতি। এ নাচের মাধ্যমে এই সম্প্রদায়ের ঐতিহ্য প্রতিফলিত হয়। কোন পর্যটক পৃথিবীর এ প্রান্তে আসলে তাঁকে অবশ্যই মনিপুরি নৃত্য দেখার জন্য সর্বাত্মক চেষ্টা করা উচিত।

মনিপুরীদের অন্যতম আবাসস্থল আদমপুর ও মাধবপুর। পাহাড়-পর্বত এবং অরণ্য ভূমি নয়নাভিরাম দৃশ্যাবলী মানুষের মনকে যতটা আকৃষ্ট করে তার চেয়েও বেশী আকৃষ্ট করে মনিপুরীদেরজীবন প্রণালী।মনিপুরীদের রয়েছে উন্নত সংস্কৃতি। প্রতি বছর নভেম্বর মাসে অগ্রহায়ণের শুরুতে মনিপুরী পল্লীতে বসে আকর্ষণীয় রাস মেলা। রাস মেলায় দেশ বিদেশ থেকে অসংখ্য দর্শণার্থী আসেন। দর্শণার্থীরা এ সময় ক্রয় করতে পারেন মনিপুরী শাল, চাদর, শাড়ী, সেলোয়ার-কামিজ, ব্যাগ, ফতুয়া, পঞ্জাবী ইত্যাদি। মাধবপুরে রয়েছে একটি মনিপুরী সাংস্কৃতিক একাডেমী।

কিভাবে যাবেন:-

সড়ক পথে ঢাকা হতে মৌলভীবাজারের দূরত্ব ২০৩ কিলোমিটার। মৌলভিবাজার থেকে খুব সহজেই মনিপুরি পল্লী পৌঁছানো যায়।