এস এ পরিবহন| ট্র্যাভেল নিউজ বাংলাদেশ

610

ঢাকার আব্দুল্লাহপুর কাউন্টার থেকে বগুড়া, গাইবান্ধা, রংপুর, সৈয়দপুর এবং দিনাজপুর উত্তরাঞ্চলের এই কয়েকটি গন্তব্যে বাস সার্ভিস রয়েছে এস এ পরিবহনের।

বাসে ওঠা:

শান্তিনগর, মহাখালী, আজমপুর এবং আবদুল্লাহপুর থেকে এস এ পরিবহনের যাত্রীরা বাসে উঠতে পারেন। শান্তিনগর ছাড়া সব জায়গা থেকে সরাসরি আন্তজেলা বাসেই ওঠা যায়। সকাল ৭টা থেকে ১০টা এবং রাত ৮টা থেকে ১২টা পর্যন্ত সময়ে প্রতি ঘন্টায় একটি করে বাস আছে এদের।

 

ভাড়া

গন্তব্য ভাড়া
বগুড়া ৩৫০ টাকা (নন এসি)
গাইবান্ধা ৪০০ টাকা (নন এসি)
রংপুর ৪০০ টাকা (নন এসি)
সৈয়দপুর ৪০০ টাকা (নন এসি)
দিনাজপুর ৩০০ টাকা (নন এসি)

 

আবদুল্লাহপুর কাউন্টারের অবস্থান

আবদুল্লাহপুর বোর্ড বাজার সাইনবোর্ড এলাকায় এস এ পরিবহনের কাউন্টারটি অবস্থিত। আবদুল্লাহপুর বাসস্ট্যান্ডের পশ্চিমপাশে সারিবদ্ধভাবে মোট ২২টি আন্তজেলা বাস কাউন্টার আছে, এখানেই এস এ পরিবহনের কাউন্টারটির অবস্থান।

ফোন নম্বর: ০১৯১৬৭১২৬১৪, ০১৯১৫৩৭৫৮৮৭

 

অন্যান্য কাউন্টার  ফোন নম্বর:

 

টেলিফোনে বুকিং দেয়া যায় তবে সেক্ষেত্রে অন্তত এক ঘন্টা আগে কাউন্টারে উপস্থিত হতে হয়। আর টিকেট ক্রয়ের পর যাত্রা বাতিল করতে চাইলে অন্তত ছয় ঘন্টা আগে জানাতে হয়। টিকেটের টাকা ফেরত দেয়া হলেও ১০% ডকুমেন্টেশন চার্জ রাখা হয়। ফোনে টিকেট বাতিল করা সম্ভব নয়। ফেরত দেয়ার জন্য টিকেট নিয়ে কাউন্টারে উপস্থিত হতে হয়। ঈদের ১০ দিন আগে এবং পরে টিকেট ফেরত দেয়ার সুযোগ থাকে না।

শর্ত: যান্ত্রিক ত্রুটি, প্রাকৃতিক দূর্যোগ, ইত্যাদি অনিচ্ছাকৃত অসুবিধার কারণে যাত্রা বাতিল, বাস পরিবর্তন বা আসন পরিবর্তন করা হতে পারে।

 

অন্যান্য নিয়ম:

  • বাস ছাড়ার অন্তত ৩০ মিনিট আগে উপস্থিত হতে হয়।
  • প্রত্যেক যাত্রী সর্বোচ্চ ১০ কেজি ওজনের মালপত্র বহন করতে পারেন।
  • অবৈধ মালপত্র বহন করা যায় না, অবৈধ মালপত্র বহন করলে কর্তৃপক্ষ কোন দায় নেয় না।
  • গাড়ীর ভেতর ধূমপান করা নিষেধ।
  • অপরিচিত লোকের দেয়া খাবার খাওয়া থেকে বিরত থাকা উচিত।
  • পথে ফেরি পারাপার করতে হলে ফেরি পারাপারের সময় যাত্রীকে গাড়ি থেকে নামতে হয়।
  • বাসের নিচে বক্সে যে লাগেজ রাখা হয় সেখানে লাগেজ রাখার পর টোকেনটি বুঝে নিতে হবে এবং হ্যান্ড ব্যাগ বা অন্যান্য জিনিসপত্র নিজ দায়িত্বে রাখতে হয়।
  • বিলম্বে পৌঁছানোর কারণে বাস ধরতে ব্যর্থ হলে টিকেটের টাকা ফেরত দেয়া হয় না।
  • যাত্রাপথে কোন অভিযোগ থাকলে সেটা অফিসে জানাতে হয়।

    তথ্য সুত্রঃ- অনলাইন ঢাকা গাইড